লোহাগাড়ার চরম্বায় জায়গা-জমির বিরোধকে কেন্দ্র করে ১যুবক খুন

   রায়হান সিকদার, লোহাগাড়া::
চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলার চরম্বা ইউনিয়নের বাইয়ার পাড়া এলাকায় জায়গা-জমির বিরোধকে কেন্দ্র করে ১যুবক খুন হয়েছে বলে সংবাদ পাওয়া গেছে। নিহত ব্যক্তির নাম মোহাম্মদ বেলাল উদ্দিন (৩৬)। সে ওই এলাকার মোহাম্মদ হোসেনের পুত্র। গত ১৭ নভেম্বর দিবাগত রাত আনুমানিক ১২টায় চরম্বা পদ্মাশিখীল এলাকায় এঘটনাটি ঘটেছে। চরম্বা ইউপি মেম্বার মোহাম্মদ আখতার হোসাইন বিষয়টি মুঠোফোনে নিশ্চিত করেছেন। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মোহাম্মদ শওকত ও বেলাল দুই ঘনিষ্ট বন্ধু। তারা দুইজনেই দীর্ঘদিন ধরে বান্দরবান পার্বত্য জেলার টংকাবতী ইউনিয়নের পর্যটন শফিকুর রহমান পাড়া এলাকায় প্রতিদিনের ন্যায় মোটর সাইকেল যোগে উল্লেখিত সময়ে মাছের প্রজেক্ট দেখতে যান। পদ্মাশিখীল এলাকায় তারা দুজন পৌছলে ৭/৮ জনের সন্ত্রাসী দল তাদের পথ গতিরোধ করে হকিষ্টিল, দা ও ছুরি দিয়ে বেলালকে শরীরের বিভিন্ন স্থানে এলোপাতাড়ি মারধর করে। এতে তার মাথায় এবং হাতে মারাত্মক ভাবে রক্তাক্ত জখম হয়। কিন্তু তার সাথে থাকা বন্ধু শওকতকে হকিষ্টিল দিয়ে মারধর করার চেষ্টা করলে তিনি পালিয়ে যান। স্থানীয়রা খবর পেয়ে গুরুত্বর আহত অবস্থায় বেলালকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তার অবস্থা আশংকা জনক দেখে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করেন। ১৮ নভেম্বর সকাল আনুমানিক ৮টায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বেলাল মারা যান বলে তার চাচাত ভাই মো: আলম উক্ত প্রতিনিধিকে জানিয়েছেন। নিহত বেলালের বন্ধু শওকত উক্ত প্রতিবেদককে জানান, তারা দু’জন পার্বত্য জেলায় টংকাবতী ইউনিয়নের পর্যটন শফিকুর রহমান পাড়া এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে মাছের প্রজেক্টের ব্যবসা পরিচালনা করে আসছে। প্রতিদিনের ন্যায় উক্ত এলাকায় যাওয়ার পথে তাদের পথ গতিরোধ করে মোটর সাইকেল চলন্ত অবস্থায় বেলালকে দা, ছুরি দিয়ে এলোপাতাড়ি আঘাত করে। তিনি গাঁ ঢাকা দিয়ে প্রাণে বেঁচে যান। তিনি আরো জানান, বেলালের পরিবারের সাথে এলাকার নজির আহমদ নামের এক ব্যক্তির জায়গা-জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। তিনি বেলালকে আঘাত করার সময় নজির আহমদের পুত্র মনির আহমদকে ঘটনাস্থলে দেখেছেন বলেও জানান। এদিকে খবর পেয়ে লোহাগাড়া থানার ওসি মোহাম্মদ শাহ্জাহান পিপিএম (বার) এর নির্দেশে থানার এসআই মো: আতিকুর রহমান খাঁনের নেতৃত্বে একটি পুলিশি টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। স্থানীয় ইউপি সদস্য মো: আখতার হোসাইনের সহযোগিতায় ঘটনাস্থল হতে বেলালকে আঘাত করার আলামত একটি হকিষ্টিল, একটি দা, একটি ছুরি ও একটি চাকু জব্দ করে থানা হেফাজতে নিয়ে আসে। এঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যকর পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে। এ রির্পোট লিখা পর্যন্ত লোহাগাড়া থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানা গেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*