রাউজানে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বাস খাদে পড়ে নিহত ৪ – আহত ২৫

রাউজান প্রতিনিধি ::
চট্টগ্রাম রাঙ্গামাটি সড়কের রাউজান উপজেলার পৌরসভায় দ্রুতগামী একটি যাত্রীবাহী বাস চাঁদের গাড়ীকে ধাক্কা দিয়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বাসটি সড়কের পাশে খাদে পড়ে যায়। জানাযায় – বাসে থাকা প্রায় ৬০ জন যাত্রী ছিল। এতে শিশুসহ ৪ যাত্রী নিহত ও কমপক্ষে ২৫ জন যাত্রী আহত হয়েছ। এদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের অবস্থা আশংকাজনক বলে পুলিশ জানায়। গতকাল শুক্রবার ( ২২ জুন ) বিকালে রাউজান পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডের ফকির তকিয়া ফরেষ্ট অফিস এলাকায় এ মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনা পর পরই স্থানীয় এলাকার লোকজন যাত্রীবাহী বাস থেকে আটকা পড়া যাত্রীদেরকে দ্রুত বাসের পেছনের অংশের জানালার কাঁচ ভেঙে উদ্ধার করে। এতে যাত্রীরা আরো বড় ধরণের বিপদ থেকে রক্ষা পায়। এ ঘটনায় আহত যাত্রীদের দ্রুত চিকিৎসার জন্য রাউজান স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও গহিরা জে, কে মেমোরিয়াল হাসপাতাল, ও চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে বিভিন্ন ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়েছে । দুঘর্টনার সংবাদ পেয়ে রাউজান উপজেলা নির্বাহী অফিসার শামীম হোসেন রেজা, উপজেলা সহকারী কমিশনার ভুমি জোনায়েদ কবির সোহাগ, রাউজান থানার পুলিশ, রাউজান হাইওয়ে থানার পুলিশ, ফায়ার ষ্টেশনের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়। সেখানে তারা দীর্ঘক্ষণ চেষ্টা চালিয়ে সন্ধ্যা প্রায় সাড়ে ছয়টার দিকে লেকের পানি থেকে তিনটি ত্রুেনের সাহায্যে দুর্ঘটনা কবলিত যাত্রীবাহী বাস উদ্ধার করেন । ঘটনার পর সড়কে স্থানীয় জনতার ভিড় ও দুর্ঘটনা কবলিত বাসটি উদ্ধারকাজের কারণে বিকাল ৪ টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত সময়ে সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। এতে সড়কের দুই পাশে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। রাউজান থানা পুলিশ, স্থানীয় পৌর কাউন্সিলর জমির উদ্দিন পারভেজসহ স্থানীয় লোকজন অনেকে জানান, গতকাল শুক্রবার বিকালে রাঙ্গুনিয়া উপজেলার রাণীর হাট এলাকা থেকে ছেড়ে আসা চট্টগ্রাম শহরমুখী একটি যাত্রীবাহী বিসমিল্লাহ নামের (চট্টগ্রাম রাঙ্গামাটি জ- ০৪-০০৪২) বাসটি রাউজান পৌরসভা এলাকায় ফরেষ্ট অফিসের পূর্ব পাশে দ্রুত গতিতে আসলে রাউজান সদর থেকে রাঙ্গুনিয়ামুখী অপর একটি চাঁদের গাড়ীকে (ঢাকা গ- ৪৩০৮) ধাক্কা দেয়। এরপরে যাত্রী বাহী বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের বিপরিত পাশে রাউজান পিংক সিটি এলাকার উত্তর পাশের দুটি গাছ ও লোহার রেলিং ভেঙে খাদে মধ্যে পড়ে গেলে বুহুযাত্রী হতাহত হয়েছে । তাৎক্ষনিক ভাবে শুশিসহ ৪ জনের লাশ উদ্ধার করা হয়। নিহতদের মধ্যে তিন জনের পরিচয় মিলেছে । তারা হলেন – বাসের চালক মোঃ ইউসুফ (৫৫) তার বাড়ী হাটহাজারী উপজেলার ইউছাপুর। নিহত শিশু নয়ন রাঙ্গুনিয়া উপজেলার মোহাম্মদপুর নিহত শিশু নুরি আক্তার (৬) চট্টগ্রাম নগরীর বায়েজিদ টেক্সটাইলের। অপর একজনের কোন পরিচয় পাওয়া যায়নি। এ ঘটনায় আহত কয়েকজন পরিচয় মিলেছে। তারা হলেন – রাঙ্গুনিয়ার রিপন (১৪) , একই উপজেলার মোঃ সুমন (২৮) ,সোহারগাঁও’র রায়হান (৩০) , তানভীর (২৫) সাতকানিয়া উপজেলার সুমন চৌধুরী (১৮) । রাউজান থানার সেকেন্ড অফিসার নুর নবী জানান- এ দুর্ঘটনায় আরো আহত ছয়জনকে হাসপাতালে প্রেরণ করলে । এরমধ্যে একজনকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে হাসপাতাল থেকে তার বাড়ীতে ফিরে গেলে আহত আরো ৫ জনের মধ্যে ২জনের অবস্থা আশংকাজনক। আহত বাস যাত্রী রাঙ্গুনিয়া উপজেলার জাহানারা বেগম ( ৬৮) তার নাতি ইমন (১৫) দেবরের পুত্র নুরুল আলম (১৫), ঢাকা বাসিন্দা প্রিয়া (২৪) ওতার স্বামীসহ বাসের পেছনের জানালা দিয়ে বের হলে এলাকার লোকজন তাদের উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে । এতে স্থানীয় অনেকে ধারণা করছে এ দুর্ঘটনা আরো মৃত্যুর সংখ্যা বাড়তে পারে। এ যাত্রীবাহী বাসটি খাদে পড়ে গেলে সড়কে ব্যাপক যানজট সৃষ্টি হয়েছে। প্রায় ৪ ঘন্টা যান চলাচল বন্ধ থাকার পরে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় দিকে খাদে পড়া বাসটি উদ্ধার করে রাঙ্গামাটি সড়কে যান চলাচলের ব্যবস্থা করে দেয়। দুর্ঘটনায় কবলিত বাস ও চাঁদের গাড়ীটি পুলিশের হেফাজতে রয়েছে বলে জানা যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*