অসম বিধানসভার নতুন উপাধ্যক্ষ পদে দায়িত্ব নিলেন সোনাইর বিধায়ক আমিনুল হক লস্কর

তাহের আহমেদ মজুমদার,অসম(ভারত) :: যাবতীয় আলোচনা সমালোচনাকে পিছনে ফেলে বুধবার অসমের বিজেপি দলের একমাএ মুসলিম বিধায়ক আমিনুল হক লস্কর মর্যাদাসম্পন্ন অসম বিধানসভার উপাধ্যক্ষ পদে দায়িত্ব নিলেন । বুধবার সকালে অসম বিধানসভার অধ্যক্ষ হিতেন্দ্রনাথ গোস্বামী সোনাইর বিধায়ক আমিনুল হক লস্করের নাম ঘোষণা করেন রাজ্য বিধানসভার উপাধ্যক্ষ পদে বীনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন বলে। উল্লেখ্য গত কাল মঙ্গলবার আমিনুল হক লস্কর রাজ্যের প্রিন্সিপাল সেক্রেটারি কাছে মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছিলেন উপাধ্যক্ষ পদের জন্য আর জানা গেছে সেদিন আমিনুলের হয়ে মোট তিনটি মনোনয়ন পএ জমা পড়ে। এতে কোন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী না থাকায় আর কোনও সমস্যা হয়নী । মনোনয়ন পত্র জমা দেওয়ার সময় তার সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের জলসেচ মন্ত্রী ভবেশ কলিতা ও প্রদেশ বিজেপি দলের সাধারণ সম্পাদক বিমল বরা।এদিকে বুধবার সকালে রাজ্য বিধানসভার নতুন উপাধ্যক্ষ পদে বিধায়ক আমিনুল হক লস্করকে মনোনীত হওয়ার ঘোষণা দেন। এর পর বিধানসভায় নতুন উপাধ্যক্ষ পদে বীনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়ে তাঁর বক্তব্য রাখতে গিয়ে নতুন উপাধ্যক্ষ আমিনুল হক লস্কর বলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সানোয়াল সহ দল য়েভাবে তাঁর উপর আস্হা রেখে তাঁকে অসম বিধানসভার পবিত্র সদনের উপাধ্যক্ষ পদের মত একটা গুরুত্বপূর্ণ পদের দায়িত্ব প্রদান করেছেন সেটা তিনি গুরুত্ব দিয়ে সবার সহয়োগিতায় পালন করার চেষ্টা করে য়াবেন বলে জানান। এদিকে বিধায়ক আমিনুল হক নতুন দায়িত্ব পাওয়ায় প্রমিলারানী ব্রম্ম, কংগ্রেস বিধায়ক কমলাক্ষ পুরকায়স্থ, বিধায়ক রঞ্জিত দাস সহ বিভিন্ন জনেরা আমিনুলকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বিধানসভায় বক্তব্য রাখেন।এদিকে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সানোয়াল রাজ্য বিধানসভার নতুন উপাধ্যক্ষ আমিনুল হক লস্করকে আন্তরিক অভিনন্দন জানিয়েছেন। মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সানোয়াল আরও জানিয়েছেন বিধানসভার যাবতীয় কাম-কাজ সুচারুরূপে এগিয়ে নিতে আমিনুল গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করার সাথে পবিত্র সদনকে এক বিশেষ মাএা প্রদান করিবেন বলে তিনি বিশ্বাস রাখেন। আমিনুলের নতুন কার্য়কালের জন্য মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সানোয়াল আমিনুলকে আন্তরিক শুভেচ্ছা জানান। ।অসমের বরাক উপত্যকার কাছাড় জেলার সোনাই বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক আমিনুল হক লস্কর বুধবার অসম বিধানসভার উপাধ্যক্ষ পদে নিজের দায়িত্ব নিলেন । দীর্ঘ দিন থেকে সোনাই থেকে নির্বাচিত একমাএ সংখ্যালঘু মুসলিম বিজেপি বিধায়ক হিসেবে আমিনুল হক লস্করকে রাজ্যমন্ত্রী সভায় অন্তর্ভুক্ত করার দাবি ছিল। শেষপর্য়ন্ত রাজ্যের বিজেপি নেতৃত্ব বিধায়ক আমিনুল হক কে রাজ্য বিধানসভার উপাধ্যক্ষ পদে বসাতে সিদ্বান্ত গ্রহন করে । অসমের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সানোয়াল ও রাজ্য বিজেপির সভাপতি রঞ্জিত দাস দলীয়ভাবে বিধায়ক আমিনুলকে সেটা জানিয়ে দিয়েছেন য়াথে তিনি উপাধ্যক্ষ পদের জন্য তাঁর মনোনয়ন জমা করার প্রস্তুুতি নেওয়ার জন্য দলীয় নির্দেশে মঙ্গলবার আমিনুল হক তাঁর মনোনয়ন পএ জমা দেন উপাধ্যক্ষ পদের জন্য। বুধবার রাজ্য বিধানসভায় আমিনুল হক বীনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় উপাধ্যক্ষ মনোনীত হওয়াতে আরও একটা ইতিহাস রচনা করলেন। স্বাধীনতার পর বরাক উপত্যকা থেকে প্রথম মুসলিম ব্যাক্তি হিসাবে অসম বিধানসভায় উপাধ্যক্ষ মনোনীত হলেন। এর আগে ১৯৭৯ সালের ৭ নভেম্বর শেখ চান্দ মোহাম্মদ বিধানসভার অধ্যক্ষ পদে বসেছিলেন তিনি ১৯৮৬ সালের ৭ জানুয়ারি পর্যন্ত তার কার্যকাল চালিয়ে।তবে তিনি ব্রম্মপুত্র উপত্যকার বাসিন্দা ছিলেন। দীর্ঘ দিন পর এবার আবার আমিনুল হক বরাক উপত্যকার কাছাড় জেলার সোনাই বিধানসভা থেকে বিধায়ক নির্বাচিত হয়ে রাজ্য বিধানসভার উপাধ্যক্ষ পদে মনোনীত হন বিধায়ক আমিনুল হক লস্কর।২০১৬ সালে অসমে বিজেপি সরকার গঠনের পর মর্যাদা সম্পন্ন অসম বিধানসভার উপাধ্যক্ষ পদটিতে প্রথম উপাধ্যক্ষ হন শিলচরের বিধায়ক দিলীপকুমার পাল পাল। তিনি কয়েকমাস কাজ করে পদ থেকে পদত্যাগ করেন। এর পর তাঁর পরিবর্তে বসানো হয় রাতাবাড়ির বিধায়ক কৃপানাথ মালাকে। মালা গত লোকসভা নির্বাচনে অসমের করিমগঞ্জ (সংরক্ষিত) লোকসভা আসন থেকে বিজেপি দলের হয়ে লড়ে সাংসদ নির্বাচিত হন। এতে ওই পদটি আবার খালি হয়। এতে সুয়োগ আসে বিধায়ক আমিনুলের কাছে। ২০১৬ এর বিধানসভা নির্বাচনের পর থেকে সোনাই থেকে নির্বাচিত একমাএ সংখ্যালঘু মুসলিম বিধায়ক হিসাবে রাজ্য মন্ত্রী সভায় আমিনুল হক লস্করের অন্তর্ভুক্তির দাবি ছিল বেশ জোরালোভাবে। আর এদিকে এবার স্বাধীনতা পর প্রথম রাজ্য মন্ত্রী সভায় মুসলিম মন্ত্রী শুন্য মন্ত্রী সভা গঠন হয়েছে বিজেপির নেতৃত্বে তাই এবার রাজ্য বিজেপির নেতারা বিধায়ক আমিনুল হক কে উপাধ্যক্ষ পদে বসিয়ে তাদের রাজনৈতিক চিএটা কিছুটা সাফকরে তুলার চেষ্টা করেছেন । এদিকে সোনাইর বিধায়ক আমিনুল হক লস্কর বুধবার অসম বিধানসভার উপাধ্যক্ষ পদে দায়িত্ব নেওয়ার পর গোটা সোনাই এলাকাজুড়ে খুশির হাওয়ায় বাসছে। ১৯৭৮ সালের পর থেকে সোনাইর মানুষ রাজ্যের শাসক দলের বিধায়ক নির্বাচিত করে আসলেও তাঁদের ভাগ্যে রাজ্য মন্ত্রী সভার কেবিনেট মন্ত্রী বা কোনও প্রতিমন্ত্রী ও জুটেনি। তাই এবার আমিনুল হক লস্করকে অসম বিধানসভার মর্যাদা সম্পন্ন উপাধ্যক্ষ পদে বসানোতে সোনাই এলাকার মানুষ আনন্দে আত্মহারা। নতুন উপাধ্যক্ষ হিসেবে শপথ নিয়ে ৪ আগস্ট আমিনুল হক লস্কর সোনাই আসতে পারেন। তাই নতুন উপাধ্যক্ষকে বেশ জাঁকজমকপূর্ণ অভ্যর্থনা জানানোর জন্য চলছে প্রস্তুুতি গোটা সোনাইয়ে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*