চন্দনাইশে এক কিশোরীকে ৩ সিএনজি চালক ধর্ষনের অভিযোগ, আটক ২

মো.কমরুদ্দীন, চন্দনাইশ :: চন্দনাইশ উপজেলার পশ্চিম কেশুয়া এলাকার ১২ বছরের ১ কিশোরী (ছদ্মনাম খুশি)কে তুলে নিয়ে তিন সিএনজি টেক্সি চালক ধর্ষন করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ২ জনকে পুলিশ আটক করেছে।
থানায় দায়েরকৃত অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, পশ্চিম কেশুয়ার এক কৃষকের মেয়ে ছদ্মনাম খুশি গত ৫ নভেম্বর সন্ধ্যায় বরকল ব্রীজের পশ্চিম পাশে তার খালার বাড়ি থেকে আসার পথে কেশুয়া রাস্তার মাথা এলাকায় নামে। সেখানে পশ্চিম কেশুয়ার মোহাম্মদ শাহজাহানের ছেলে সিএনজি টেক্সি চালক ইমন (২৫) খুশিকে কৌশলে সিএনজি টেক্সিতে তুলে পশ্চিম বাইনজুড়ি এলাকায় একটি ঘরে নিয়ে যায়। সেখানে অপর সিএনজি টেক্সি চালক পশ্চিম বাইনজুড়ির ফজল আহমদের ছেলে সাঈদ মিয়া (২৫), আফজল আহমদের ছেলে আমির হোসেন (২৪) এবং ইমন কিশোরী খুশিকে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে ধর্ষন করে। সকালে খুশিকে চন্দনাইশ সদর এলাকায় সিএনজি টেক্সিযোগে আমির ও সাঈদ তার এক আত্মীয় বাড়িতে দিতে আসলে স্থানীয়রা তাদের দুজনকে আটক করে পুলিশে দেয়। এব্যাপারে ভিকটিম খুশির পিতা সম্পূর্ণ ঘটনার বিবরণ দিয়ে গত ৬ নভেম্বর থানায় মামলা দায়ের করেন। সে ঘটনার মামলায় পুলিশ আমির ও সাঈদকে আটক দেখায়। এব্যাপারে থানা অফিসার ইনচার্জ কেশব চক্রবর্ত্তী বলেছেন, ধর্ষনের ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। ২ জনকে আটক করা হয়েছে। ভিকটিম খুশিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে। প্রতিবেদন পাওয়া সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। সেই সাথে ভিকটিমের ২২ ধারায় জবানবন্দি রেকর্ড করা হবে। তাছাড়া পলাতক আসামী ইমনকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে বলে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*